আমি গগন গহনে সন্ধ্যা-তারা

আমি গগন গহনে সন্ধ্যা-তারা
কনক গাঁদার ফুল গো।
গোধূলির শেষে হেসে উঠি আমি
এক নিমেষের ভুল গো॥

আমি কণিকা,
আমি সাঁঝের অধরে ম্লান আনন্দ-কণিকা
আমি অভিমানিনীর খুলে ফেলে দেওয়া মণিকা
আমি দেব-কুমারীর দুল গো॥

আলতা রাখার পাত্র আমার
আধখানা চাঁদ ভাঙা
তাহারি রং গড়িয়ে প’ড়ে
ঐ অস্ত-আকাশ রাঙা।

আমি একমুঠো আলো কৃষ্ণা-সাঁঝের হাতে
আমি নিবেদিত ফুল আকাশ-নদীতে রাতে
ভাসিয়া বেড়াই যাঁর উদ্দেশে গো
তার পাই না চরণ মূল॥