দোপাটি লো লো করবী

দোপাটি লো, লো করবী, নেই সুরভি রূপ আছে।
রঙের পাগল রূপ-পিয়াসী সেই ভালো আমার কাছে॥

গন্ধ-ফুলের জলসাতে তোর
গুণীর সভায় নেইকে আদর,
গুল্ম-বনে দুল্ হয়ে তুই দুলিস্ একা ফুলগাছে॥

লাজুক মেয়ে পল্লী-বধূ জল নিতে যায় একলাটী,
করবী নেয় কবরীতে বেণীর শেষে দোপাটি।

গন্ধ ল’য়ে স্নিগ্ধ মিঠে
আলো ক’রে থাকিস্ ভিটে,
নেই সুবাস সাথে, গায়ে কাঁটা, সেই গরবে মন নাচে॥