তোরা যারে এখনি হালিমার কাছে লয়ে

তোরা যারে এখনি হালিমার কাছে
লয়ে ক্ষীর সর ননী।
আমি খোয়াবে দেখেছি কাঁদিছে মা বলে
আমার নয়ন-মণি॥

মোর শিশু আহমদে যেদিন কাঁদিয়া
হালিমার হাতে দিয়াছি সঁপিয়া,
সেই দিন হতে কেঁদে কেঁদে মোর
কাটিছে দিন-রজনী॥

পিতৃহীন সে সন্তান হায়
বঞ্চিত মার স্নেহে,
তারে ফেলে দূরে কোল খালি করে
থাকিতে পারি না গেহে॥

অভাগিনী তার মা আমিনায়
মনে করে সে কি আজো কাঁদে, হায়!
বলিস তাহারই আসার আশায় দিবানিশি দিন গণি॥

(জুলফিকার গ্রন্থের দ্বিতীয় খণ্ড হতে সংগৃহীত)