শক্রর সাথে একা

হারিয়েছে সে যে পাখির বৃত্তি
কাজের নরকে প্রাণ,
শত্রু যে তার শত্রুর সাথে মিতালি।

পায়নিতাে খুঁজে মিত্রতা কারও
প্রাণের শ্রমের ক্লান্তির শেষে শুয়ে,
অথবা ব্যর্থ কালির আঁচড়ে কেঁদে
বিবর্ণ ভােরে মাথা কুটে তার দোরে
ফিরেছে আবার নরকের টানে
অমােঘ প্রহরে একা,
শত্রু যে তার শত্রুর সাথে মিতালি!

সে জানে আপন জানা-অজানার ত্রিলােকে,
যারা অগণ্য পৌষ বুকে পুরে বাঁচে,
বেড়ার আড়ালে অলক্ষ্যে ইশারায়
ভবিতব্যের ভাগ্য-তারাও ঘােরায়
স্বাধীন প্রাণের বৃত্তে আবার ছড়ায়
বর্বর হাত জরা
শত্রু যে তার শত্রুর সাথে মিতালি!

কতকাল আর বিরূপ দুখের পাড়ায়
অসম্ভবের পর্দা সরিয়ে প্রাণের
উত্তাপে তাকে পাবার নিবিড় আশায়
ক্ষয় করে তার দুর্লভ ক্ষণ গানের
প্রসন্ন মনে হারানাে মেঘের খোঁজে
হেলায় হারায় কাল,
শত্রু যে তার শত্রুর সাথে মিতালি!