রবীন্দ্রনাথ

বসেছিলাম পায়ের কাছে, ভেবেছিলাম মনে—
একটা কিছু চেয়ে নেব সেবায়—আরাধনে।
আর সবারই পূজার শেষে
বলেছিলে ঈষৎ হেসে,
কবি, তুমি বলো, তােমার কিসের নিবেদন;
বলেছিলাম, পাই যেন এই সঙ্গ সারাক্ষণ।

বলেছিলে—যাবার পথে অস্তাচলের কোণে,—
অনুদিনই জেগে আমি ই তােমার মনে,—
আমায় কিন্তু ভুলতে হবে,
শুধু আমার দীপ্তি রবে—
পড়বে মনে—চাইবে যখন তােমার দু’নয়ন;
তােমার আমার সেই দেখারই রইল আয়ােজন।

আজ যেদিকে ফিরাই আঁখি—যেথায় যাহা আছে,
মনে পড়ে সেই কথাটাই—আছই তুমি কাছে।
ধরার মুখে তােমার আলাে,
চাইতে গেলেই লাগে ভালাে,
যে বাণী মাের মন ভুলালাে, স্মরণ করি তাই;
তােমার আমার দেখার পখে তাইতাে বাধা নাই।

মুখের কথা? নাই-বা হলাে—বুকের মাঝেই থেকো,
দিন ফুরাবার আগে আমার এই মিনতি রেখাে।
চোখের পথে, মনের মাঝে
তােমার যে সুর সারং বাজে,
সেই সুরেরই আবেগ যেন না ছাড়ে একতিল;
চোখের পাতায় মনের খাতায় হারায় নাকো মিল।