বিরহ

ব্যাকুল

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

অমন করে আছিস কেন মা গো, খোকারে তোর কোলে নিবি না গো? পা ছড়িয়ে ঘরের কোণে কী যে ভাবিস আপন মনে, এখনো তোর হয় নি তো চুল বাঁধা। বৃষ্টিতে যায় মাথা ভিজে জানলা খুলে দেখিস কী যে, কাপড়ে যে লাগবে...

বিদায়

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

তবে আমি যাই গো তবে যাই ভোরের বেলা শূন্য কোলে ডাকবি যখন খোকা ব'লে, বলব আমি, "নাই সে খোকা নাই। মা গো, যাই।" হাওয়ার সঙ্গে হাওয়া হয়ে যাব মা, তোর বুকে বয়ে, ধরতে আমায় পারবি নে তো হাতে। জলের মধ্যে...

বিচ্ছেদ

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

বাগানে ওই দুটো গাছে ফুল ফুটেছে কত যে, ফুলের গন্ধে মনে পড়ে ছিল ফুলের মতো যে। ফুল যে দিত ফুলের সঙ্গে আপন সুধা মাখায়ে, সকাল হত সকাল বেলায় যাহার পানে তাকায়ে, সেই আমাদের ঘরের মেয়ে সে গেছে আজ প্রবাসে, নিয়ে...

শিশুর মৃত্যু

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

বেঁচেছিল, হেসে হেসে খেলা ক'রে বেড়াত সে হে প্রকৃতি, তারে নিয়ে কী হোলো তোমার। শত রং-করা পাখি তোর কাছে ছিল নাকি। কত তারা, বন, সিন্ধু, আকাশ অপার।। জননীর কোল হতে কেন তবে কেড়ে নিলি, লুকায়ে ধরার কোলে ফুল দিয়ে ঢেকে...

আকুল আহ্বান

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

সন্ধে হল, গৃহ অন্ধকার, মা গো, হেথায় প্রদীপ জ্বলে না। একে একে সবাই ঘরে এল, আমায় যে মা, 'মা' কেউ বলে না। সময় হল, বেঁধে দেব চুল, পরিয়ে দেব রাঙা কাপড়খানি। সাঁঝের তারা সাঁঝের গগনে— কোথায় গেল রানী আমার রানী।...

অনেক তিয়াষে করেছি ভ্ৰমণ

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

২ অনেক তিয়াষে করেছি ভ্ৰমণ জীবন কেবলি খোঁজা। অনেক বচন করেছি রচন, জমেছে অনেক বোঝা। যা পাই নি তারি লইয়া সাধনা যাব কি সাগরপার। যা গাই নি তারি বহিয়া বেদনা ছিঁড়িবে বীণার তার?

দুখের দশা শ্রাবণরাতি

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

৮৯ দুখের দশা শ্রাবণরাতি— বাদল না পায় মানা, চলেছে একটানা। সুখের দশা যেন সে বিদ্যুৎ ক্ষণহাসির দূত।

না চেয়ে যা পেলে তার যত দায়

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

৯৪ না চেয়ে যা পেলে তার যত দায় পুরাতে পার না তাও, কেমনে বহিবে চাও যত কিছু সব যদি তার পাও!

বিদায়রথের ধ্বনি

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

১৩৬ বিদায়রথের ধ্বনি দূর হতে ওই আসে কানে। ছিন্নবন্ধনের শুধু কোনো শব্দ নাই কোনোখানে।

বেদনা দিবে যত

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিরহ

১৪২ বেদনা দিবে যত অবিরত দিয়ো গো। তবু এ ম্লান হিয়া কুড়াইয়া নিয়ো গো। যে ফুল আনমনে উপবনে তুলিলে কেন গো হেলাভরে ধুলা-'পরে ভুলিলে। বিঁধিয়া তব হারে গেঁথো তারে প্রিয় গো।