কত ফুল তুমি পথে ফেলে দাও

কত ফুল তুমি পথে ফেলে দাও
প্রিয়, মালা গাঁথ অকারনে
আমি চয়েছিনু একটি কুসুম
সেই কথা পড়ে মনে॥

তব ফুলবনে কত ছায়া দোলে
জুড়াইতে চেয়েছিনু তারি তলে
চাহিলে না ফিরে চলে গেলে ধীরে
ছায়া-ঢাকা অঙ্গনে॥

অঞ্জলি পাতি’ চেয়েছিনু
তব ভরা ঘটে ছিল বারি
শুষ্ক-কন্ঠে ফিরিয়া আসিনু
পিপাসিত পথচারী।

বহুদিন পরে দাঁড়াইনু এসে
তোমারি দুয়ারে উদাসীন বেশে
শুকানো মালিকা কেন দিলে তুমি
তব ভিক্ষার সনে
ভাবি ব’সে আন্মনে॥