এ নহে বিলাস বন্ধু ফুটেছি জলে কমল

এ নহে বিলাস বন্ধু, ফুটেছি জলে কমল।
এ যে ব্যথা-রাঙা হৃদয় আঁখি-জলে টলমল॥

কমল মৃণাল-দেহ ভরেছে কন্টক-ঘায়,
শরণ লয়েছি গো তাই শীতল দীঘির জল॥

ডুবেছি আজ কালো জলে কত যে জ্বালা সয়ে
শত ব্যথা ক্ষত লয়ে হইয়াছি শতদল॥

আমার বুকের কাঁদন তুমি বলো ফুল-বাস,
ফিরে যাও, ফেলো না গো শ্বাস
দখিনা বায়ু চপল॥

ফোটে যে কোন্ ক্ষত-মুখে
কবি রে তোর গীত সুর,
সে ক্ষত দেখিল না কেউ,
দেখিল তোরে কেবল॥

[মান্দ্—কাহার্বা]