বিবিধ

ভাইদ্বিতীয়া

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

সকলের শেষ ভাই সাত ভাই চম্পার পথ চেয়ে বসেছিল দৈবানুকম্পার। মনে মনে বিধি-সনে করেছিল মন্ত্রণ, যেন ভাইদ্বিতীয়ার পায় সে নিমন্ত্রণ। যদি জোটে দরদি ছোটো-দি বা বড়ো-দি অথবা মধুরা কেউ নাতনির rank-এ উঠিবে আনন্দিয়া, দেহ প্রাণ মন দিয়া ভাগ্যেরে বন্দিবে সাধুবাদে...

সালগম-সংবাদ

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

নাতিনীর পত্র শ্রীচরণেষু দাদামহাশয় খেয়েছ যে সাল্গম না করিয়া কাল-গম এই আমি বহুভাগ্য মানি। তার পরে মিঠি মিঠি লিখেছ স্নেহের চিঠি, তার মূল্য কী আছে কী জানি। তুচ্ছ এই উপহার কে জানিত কমলার পদ্মসরোবর দিবে নাড়া— সালগম মটন রোস্টে কবির...

সুসীম চা-চক্র

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

হায় হায় হায় দিন চলি যায়। চা-স্পৃহ চঞ্চল চাতকদল চল চল চল হে! টগবগ উচ্ছল কাথলিতল জল কল কল হে! এল চীন-গগন হতে পূর্বপবনস্রোতে শ্যামল রসধরপুঞ্জ, শ্রাবণবাসরে রস ঝরঝর ঝরে ভুঞ্জ হে ভুঞ্জ দলবল হে! এস পুঁথিপরিচালক তদ্ধিতকারক তারক তুমি...

চাতক

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

কী রসসুধা-বরষাদানে মাতিল সুধাকর তিব্বতীর শাস্ত্র গিরিশিরে! তিয়াষিদল সহসা এত সাহসে করি ভর কী আশা নিয়ে বিধুরে আজি ঘিরে! পাণিনিরসপানের বেলা দিয়েছে এরা ফাঁকি, অমরকোষ-ভ্রমর এরা নহে। নহে তো কেহ-সারস্বত-রস-সারসপাখি, গৌড়পাদ-পাদপে নাহি রহে। অনুস্বরে ধনুঃশর-টংকারের সাড়া শঙ্কা করি দূরে দূরেই...

মিষ্টান্বিতা

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

যে মিষ্টান্ন সাজিয়ে দিলে হাঁড়ির মধ্যে শুধুই কেবল ছিল কি তায় শিষ্টতা। যত্ন করে নিলেম তুলে গাড়ির মধ্যে, দূরের থেকেই বুঝেছি তার মিষ্টতা। সে মিষ্টতা নয় তো কেবল চিনির সৃষ্টি, রহস্য তার প্রকাশ পায় যে অন্তরে তাহার সঙ্গে অদৃশ্য কার...

নারীর কর্তব্য

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

পুরুষের পক্ষে সব তন্ত্রমন্ত্র মিছে, মনু-পরাশরদের সাধ্য নাই টানে তারে পিছে। বুদ্ধি মেনে চলা তার রোগ; খাওয়া ছোঁওয়া সব-তাতে তর্ক করে, বাধে গোলযোগ। মেয়েরা বাঁচাবে দেশ, দেশ যবে ছুটে যায় আগে। হাই তুলে দুর্গা ব'লে যেন তারা শেষরাতে জাগে; খিড়কির...

আশীর্ব্বাদ

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

পঞ্চাশ বছরের কিশোর গুণী নন্দলাল বসুর প্রতি সত্তর বছরের প্রবীণ যুবা রবীন্দ্রনাথের আশীর্ভাষণ নন্দনের কুঞ্জতলে রঞ্জনার ধারা, জন্ম-আগে তাহার জলে তোমার স্নান সারা। অঞ্জন সে কী মধুরাতে লাগালো কে যে নয়নপাতে, সৃষ্টি-করা দৃষ্টি তাই পেয়েছে আঁখিতারা।। এনেছে তব জন্মডালা অজর...

কালো ঘোড়া

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

কালো অশ্ব অন্তরে যে সারারাত্রি ফেলেছে নিশ্বাস সে আমার অন্ধ অভিলাষ। অসাধ্যের সাধনায় ছুটে যাবে ব'লে দুর্গমেরে দ্রুত পায়ে দ'লে খুরে খুরে খুঁড়েছে ধরণী, করেছে অধীর হ্রেষাধ্বনি। ও যেন রে যুগান্তের কালো অগ্নিশিখা, কালো কুজ্ঝটিকা। অকস্মাৎ নৈরাশ্য আঘাতে দ্বার মুক্ত...

বাউল

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

দূরে অশথতলায় পুঁতির কণ্ঠিখানি গলায় বাউল দাঁড়িয়ে কেন আছ? সামনে আঙিনাতে তোমার একতারাটি হাতে তুমি সুর লাগিয়ে নাচো! পথে করতে খেলা আমার কখন হল বেলা আমায় শাস্তি দিল তাই। ইচ্ছে হোথায় নাবি কিন্তু ঘরে বন্ধ চাবি আমার বেরোতে পথ নাই।...

চিরদিনের দাগা

  • রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
  • কবিতা, বিবিধ

ও পার হতে এ পার পানে খেয়ানৌকো বেয়ে ভাগ্য-নেয়ে দলে দলে আনছে ছেলে মেয়ে। সবাই সমান তারা এক সাজিতে ভ'রে আনা চাঁপা ফুলের পারা। তাহার পরে অন্ধকারে কোন্ ঘরে সে পৌঁছিয়ে দেয় কারে! তখন তাদের আরম্ভ হয় নব নব কাহিনীজাল...